• শিরোনাম

    অনলাইন ক্লাস করে ঘাড় ও পিঠের ব্যথার সহজেই সমস্যার সমাধান

    | ২৩ ডিসেম্বর ২০২০ | ১০:৩০ অপরাহ্ণ | পড়া হয়েছে 80 বার

    অনলাইন ক্লাস করে ঘাড় ও পিঠের ব্যথার সহজেই সমস্যার সমাধান

    করোনা মহামারির কারণে দীর্ঘদিন বন্ধ স্কুল-কলেজ। ফলে অনলাইন ক্লাসই ভরসা। কিন্তু দীর্ঘক্ষণ অনলাইন ক্লাস করার ফলে বেশিরভাগ বাচ্চারই পিঠ, কোমর ও ঘাড়ের যন্ত্রণা দেখা দিচ্ছে, যা বাবা-মায়েদের উদ্বেগ বাড়িয়ে তুলছে।

    তবে শুধু ঘাড় বা পিঠের ব্যথা নয়, বেশি কম্পিউটার ব্যবহারের ফলে চোখ ও মেরুদণ্ডের সমস্যাও দেখা দিতে পারে। তাই এক্ষেত্রে প্রত্যেক বাবা-মাকেই সতর্ক থাকতে হবে। এই টিপসগুলি মেনে চললেই আপনার বাচ্চা এই সব শারীরিক সমস্যা থেকে সহজেই মুক্তি পেতে পারে। ১) বসার জায়গা নির্দিষ্ট করুন বাচ্চা কোথায় বসে অনলাইন ক্লাস করবে সেটা ঠিক করুন আগে। বিছানায় বসে পড়াশুনা করলে সমস্যা হতে পারে।



    তাই সবচেয়ে ভাল ডেস্কে বা চেয়ার-টেবিলে বসে পড়া। বসার ভুল পদ্ধতিই অনেক সমস্যা ডেকে আনে। বিশেষ করে বাচ্চারা এক জায়গায় চুপ করে বসতে পারে না। পড়তে পড়তে বাচ্চা যেন শুয়ে না পড়ে, অবশ্যই নজর রাখবেন সেদিকে। ২) বসার ধরন যেন ঠিক থাকে বাচ্চা কীভাবে বসে পড়ছে সেটা দেখা খুব জরুরি।

    চেয়ার-টেবিলে বসে পড়লে বাচ্চার পা যেন মাটিতে থাকে। পা নাচালে, পা ঝুলে থাকলে পায়ের সমস্যা যেমন হবে, তেমনি ব্যাকপেন হতে পারে। কম্পিউটারের স্ক্রিন এমনভাবে রাখুন যাতে বাচ্চা সোজা হয়ে বসেই দেখতে পায়। যদি আপনার বাচ্চার ৮ বছরের বেশি বয়স হয়, তাহলে তার জন্য পড়ার টেবিল আনুন, যেটায় বসে পড়তে সমস্যা হবে না।

    ৩) স্ট্রেচিং করতে বলুন বাচ্চাকে দীর্ঘক্ষণ কম্পিউটারে চোখ থাকলে ক্ষতি হবে চোখের। সেইসঙ্গে ঘাড়, পিঠের সমস্যাও দেখা দেবে। তাই ক্লাসের মাঝে একটু ব্রেক নিয়ে বাচ্চাকে একটু হাঁটাচলা করান। কিছু এক্সারসাইজ করলে এই ধরনের সমস্যা ধারে-কাছে ঘেঁষবে না। বাটারফ্লাই স্ট্রেচ বাচ্চার কাঁধ ও পিঠের যন্ত্রণাকে কম করবে।

    কানের দুই পাশে হাত রেখে কনুই সামনের দিকে রাখতে বলুন, তারপর ধীরে ধীরে দুটি হাত দুদিকে সরাতে হবে। হিসাব মতো, প্রতি এক ঘণ্টা অন্তর ৫-১০ মিনিট ব্রেক নেওয়া দরকার। ৩০ মিনিট অন্তর ব্রেক নিলে খুব ভালো। দরকার হলে অ্যালার্ম দিয়ে রাখুন। ৪) বালিশ ব্যবহার করতে বলুন কম্পিউটার বা ল্যাপটপে কাজ করার সময় সবথেকে বেশি চাপ পড়ে কোমরে। বাচ্চার পিঠ, কোমরের যন্ত্রণা দূর করতে পিছনের দিকে একটা বালিশ দিয়ে রাখুন। আরাম পাবে আপনার বাচ্চা।

    ৫) ফোনে ক্লাস করতে দেবেন না শিশুকে ফোন বা ট্যাব থেকে দূরে রাখুন বাচ্চাকে। কোনওভাবেই যেন সে ফোন বা ট্যাবে পড়াশোনা না করে। কারণ ট্যাব, ফোনে পড়াশুনা করলে শুয়ে পড়তে সুবিধা হবে বাচ্চার। এছাড়া ছোট গ্যাজেটে দীর্ঘক্ষণ পড়াশোনা করলে চোখের সমস্যাও দেখা দেবে।

    এছাড়া পড়াশোনার পরিবেশ ঠিক রাখতে হবে, দেখবেন আপনার বাচ্চা অনলাইন ক্লাসেও ভাল পারফর্ম করছে। ৬) হেলদি ডায়েট দিন ভিটামিন, নিউট্রিশন, মিনারেলযুক্ত খাবার দিন শিশুকে। ক্যালসিয়াম, ম্যাগনেসিয়াম, ভিটামিন সমৃদ্ধ হেলদি ডায়েট শিশুকে শক্তি জোগাবে। তার পেশি, হাড়কে ঠিক রাখবে।

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    Archive Calendar

    শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
     
    ১০১১১২১৩১৪১৫১৬
    ১৭১৮১৯২০২১২২২৩
    ২৪২৫২৬২৭২৮২৯৩০